উপন্যাস

কাক ও কাঠ গোলাপ PDF Download হুমায়ূন আহমেদ

হুমায়ূন আহমেদ স্যারের কাক ও কাঠগোলাপ বইটির পিডিএফ ফাইল আমাদের ওয়েবসাইটে পেয়ে যাবেন। শিশু-কিশোরদের জন্য এই বইটি একটি চমৎকার বই এবং তাদের একটি উপন্যাস। শিশু-কিশোরদের বই পড়ার অভ্যাস তৈরি করার জন্য প্রথমদিকে তাদেরকে মজার মজার বই পড়তে দিতে হবে।

মজার বই হিসেবে আপনি হুমায়ূন আহমেদ স্যার এর শিশু কিশোর উপন্যাস গুলো তাদের হাতে তুলে দিতে পারেন। দেখবেন একটা সময় পরে আপনার ঘরের শিশু বই পড়ার প্রতি আগ্রহ বোধ করছে এবং যেকোন ধরনের বই পড়তে চাইবে। বর্তমানে কাক ও কাঠগোলাপ বইটি বাজারে প্রিন্ট আউট থাকায় আপনারা বইটি পিডিএফ ফাইল আকারে আমাদের ওয়েবসাইটে পেয়ে যাবেন। আমাদের ওয়েবসাইটের নিচের দিকে গেলেই আপনারা কাক ও কাঠগোলাপ বইটি ডাউনলোড করে নিতে পারবেন।

হুমায়ূন আহমেদ স্যার অন্য প্রকাশনীর মাধ্যমে বেশ কিছু শিশু কিশোর উপন্যাস লিখেছেন। বইটির বিশেষত্ব হলো গল্প গুলো খুবই মজা দেখাবে ছোট পাঠকদের জন্য তৈরি করা এবং গল্পের সাথে সাথে ছবি সংযোজন করা। এতে একজন শিশু যখন বই পড়বে তখন ছবি দেখার পাশাপাশি বইটা পড়বে এবং বেশি আনন্দ লাভ করতে পারবে। কাক ও কাঠগোলাপ বইটির পৃষ্ঠা সংখ্যা মাত্র 28 টি। বর্তমান বাজারে এই বইটির মুদ্রিত মূল্য ধরা হচ্ছে একশত পঞ্চাশ টাকা। তাই শিশুদের বই পড়ার অভ্যাস গড়ে তুলতে আপনারা এই বইটি ডাউনলোড করে নিন আমাদের ওয়েবসাইট থেকে।

কাক ও কাঠগোলাপ বইয়ের কেন্দ্রীয় চরিত্র হলো তুহিন নামক একটি ছেলে। তার বাড়িতে একটি কাঠ গোলাপের গাছ আছে। কাঠগোলাপের গাছে যখন ফুল ফুটে তখন সেই ফুলের সুবাসে চারিপাশ আচ্ছাদিত হয়ে যায় এবং পরিবেশটা মনোরম হয়ে ওঠে। কাঠগোলাপ গাছের জন্যই কাকেরা এই গাছে এসে বাসা বেঁধেছে এবং মাঝে মধ্যে তারা একসঙ্গে দলবেঁধে এই গাছে আসে এবং শব্দ করে। এতে তুহিন আনন্দিত হয়। তুহিন কাকেদের বন্ধু হিসেবে মনে করে এবং মনে করে যে সব সময় কাকেরা তার পাশে এভাবেই থাকবে।

হঠাৎ করে একদিন তুহিনের বাবা খাবার টেবিলে বসে কঠিন সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেন। সেটি হল তুহিনের পছন্দের কাঠগোলাপ গাছটি কেটে ফেলার প্রস্তাব। কারণ কাঠগোলাপ গাছ আছে বলে ভোরবেলায় কাকেরা এসে কাকা করে। এতে তুহিনের বাবার ঘুমের সমস্যা হয়। খাবার টেবিলে এই কথা উত্থাপন হলে তুহিন হাত তুলে কোন কিছু বলার অনুমতি চাই। তুহিনের বাবা ছেলের কথা শুনে এবং বলে যে বড় রাতের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে তা ভেবে চিন্তেই গ্রহণ করে। কাঠগোলাপ গাছ আছে বলে কাকেরা আসে এবং তাদের বাড়িতে অনেক ধরনের সমস্যার সৃষ্টি হয়।

বাবার মুখের উপর দিয়ে কোন কথা বলার সাহস না থাকায় সে আর কোন কিছু বলতে পারেনা। তাই সেদিন রাত এখন চিন্তা করতে থাকে যে এই কাঠগোলাপ গাছ কেটে ফেলা হলে কাজ গুলো কোথায় যাবে। তাদের বাচ্চাকাচ্চা কোথায় যাবে এবং কিভাবে থাকবে। একসময় কাকের কথা এবং কাঠগোলাপের কথা ভাবতে ভাবতে তুহিন অসুস্থ হয়ে পড়ে।

অসুস্থ অবস্থায় একদিন তুহিন লক্ষ্য করে যে একসঙ্গে অনেকগুলো কাক এসে বসেছে কাঠগোলাপ গাছের উপরে। তুহিন বুঝতে পারে যে তার অসুস্থতাই কাকেরা তাকে দেখতে এসেছে। তাই সে খুব আনন্দিত হয়। পরবর্তীতে তার বাবা সেই কাগজের দেখে তাদের ক্ষেত্রে দায়ী এবং বলে যে তুহিন ভালো হয়ে গিয়েছে তোমরা চলে যাও।

মানুষ হয়ে অন্য জীবকুলের প্রতি ভালোবাসা এই বইটিতে উঠে এসেছে। শিশুরা এই বইটি পাঠের মাধ্যমে এই বিষয়টি শিখবে যে, যে জীবে সেবা করবে এবং জীবকে ভালোবাসার দৃষ্টিতে দেখবে, মহান সৃষ্টিকর্তা তাকে ভালবাসবে। আনন্দের সঙ্গে শিক্ষা পাওয়ার জন্য বইটি শিশুদের জন্য একটি উপাদেয় বই।

কাক ও কাঠ গোলাপ PDF

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *