ভ্রমণকাহিনী

পায়ের তলায় খড়ম PDF Download হুমায়ূন আহমেদ

বাংলাদেশের একজন বিখ্যাত লেখক হলেন হুমায়ুন আহমেদ। তিনি একাধারে একজন লেখক, সাহিত্যিক, গল্পকার, চলচ্চিত্রকর, নাট্যকার ইত্যাদি। তিনি ফিকশন, নন- ফিকশন, ছোট – বড় সবার জন্য অনেক বই ধরনের বই লিখে গেছেন। ‘ পায়ের তলায় খড়ম ‘ তার একটি অসাধারণ ভ্রমণ কাহিনী মূলক বই।

বইটি প্রকাশিত হয়েছে ২০১০ সালের ফেব্রুয়ারী মাসে। বইটির দ্বিতীয় সংস্করণ হয় ২০১২ সালে। বইটি প্রকাশনা করেছে অন্য প্রকাশ প্রকাশনী। বইটি হার্ডকাভারে ছাপা হয়েছে। বইটির মোট পৃষ্ঠা সংখ্যাঃ ৯৬ টি। বইটির বাংলাদেশী মুদ্রিত মূল্যঃ ৩৫০ টাকা। বইটির অনলাইন পিডিএফ সাইজঃ ০৯ এমবি।

হুমায়ুন আহমেদ সাহিত্য অঙ্গনে যেখানেই পা রেখেছেন সেখানেই সোনা ফলেছে। তিনি সাহিত্যের একজন উজ্জ্বল নক্ষত্র ছিলেন। তিনি বিভিন্ন ধরনের বই রচনা করার সাথে সাথে অনেক ভ্রমণ কাহিনীও লিখেছেন। ‘ পায়ের তলায় খড়ম ‘ তার চমৎকার একটি ভ্রমণ কাহিনী মূলক বই। অসাধারণ এই বইটি পড়তে চাইলে আমাদের ওয়েবসাইট থেকে ফ্রী পিডিএফ ডাউনলোড করে পড়তে পারবেন। যারা এখনো বইটি পড়েননি তারা তাড়াতাড়ি আমাদের ওয়েবসাইট ভিজিট করে আজই চমৎকার এই বইটি পড়ে ফেলুন।

পায়ের তলায় খড়ম বইয়ের মূল কাহিনী

এই বইটি হুমায়ুন আহমেদ রচিত শেষ প্রকাশিত ভ্রমণ কাহিনী মূলক বই। হুমায়ুন আহমেদ মনে করেন যাদের পায়ের তলায় সর্ষে থাকে তারা অনেক ঘুরে বেড়াতে পছন্দ করেন। তারা এক জায়গায় স্থির না থেকে বিভিন্ন জায়গায় ঘুরে বেড়ান। কিন্তু লেখক মনে করেন তার পায়ের তলায় খড়ম রয়েছে কারণ লেখকের ঘুরতে মোটেও ভালো লাগে না। খড়ম যেমন শক্ত আর হাটতেও অসুবিধা হয় তেমনি লেখকেরও বাইরে বেরুতে ইচ্ছে করে না। তিনি সব সময় ঘরকুনো থাকতেই পছন্দ করেন। তাই তিনি বইটির নাম দিয়েছেন ‘ পায়ের তলায় খড়ম ‘।

বইটিতে অনেকগুলো ভ্রমণ কাহিনী রয়েছে। প্রথম কাহিনি বর্ননা করেছেন ইস্তাম্বুল ভ্রমণের। লেখকের দ্বিতীয় স্ত্রী শাওন ছোটবেলায় কামাল আতাতুর্কের জন্মদিনের একটা অনুষ্ঠানে নাচতে গিয়েছিলেন। সেখানে গিয়ে তাকে একটা তুর্কী পরিবারের সাথে থাকতে হয়। সেই পরিবারের একটি মহিলাকে শাওন আন্নি বলে ডাকতো। তাই লেখক পঁচিশ বছর পর আবার তাকে ইস্তাম্বুল নিয়ে গিয়েছিলেন। সেই কাহিনির বর্ননা তিনি বইটিতে করেছেন।

এরপর বইটিতে লস এ্যান্ঞ্জেল ভ্রমণের কাহিনী রয়েছে। সেখানে বিখ্যাত জাদুশিল্পী জুয়েল আইচের ভাই শঙ্কু আইচের সাথে মজার মজার ঘটনার তিনি বর্ণনা দিয়েছেন। শঙ্কু আইচের ভুলোমনা মন নিয়ে তিনি কি মজার আর অদ্ভুত সব ঘটনা ঘটিয়েছেন তার বিস্তারিত দেওয়া আছে। এর পর গ্রিনিচ মান মন্দির দর্শন, নিউজিল্যান্ড ভ্রমণ, গ্র্যান্ড ক্যানিয়াম ভ্রমণ সবকিছুই তিনি সুন্দর করে লিখেছেন।

হুমায়ুন আহমেদ তার ছোট ভায়ের নাম তার এক বন্ধুর নাম অনুসারে রেখেছিলেন। সেই বন্ধুর বাড়ি মিশিগানে। সেখানে যাওয়ার ভ্রমণ কাহিনীও তিনি এই বইটিতে তুলে ধরেছেন। এটি লেখকের শেষ ভ্রমণ ছিল কারণ এরপরেই তিনি চিকিৎসার জন্য আমেরিকায় চলে যান। বইটির কাহিনী তিনি শেষ করেছেন তার শৈশবে ঘটে যাওয়া একটি কাহিনী নিয়ে। সেই একই কাহিনী তার বড় মেয়ের শৈশবের একটি কাহিনীর সাথে মিলে যায়। সবকিছু মিলে বইটি অত্যন্ত চমৎকার একটি বই যা পড়লে পাঠক অনেক কিছু জানতে পারবেন।

পায়ের তলায় খড়ম PDF

Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published.